1. admin@englishbangla24.com : admin :
ফুলবাড়ী’র শিমুলবাড়ীতে সোনাইকাজী আশ্রয়ণ প্রকল্প-২ এর ৩৯ টি ঘরে যাওয়ার রাস্তা অন্যের জমির ক্ষেতের আইল” - English Bangla 24
শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০:২২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
লালমনিরহাটে যথাযোগ্য মর্যাদায় ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জ্ঞাপন লালমনিরহাটে মাদক বিরোধী অভিযানে আটক ৫ মোহাম্মদ জমির উদ্দিন এর সংক্ষিপ্ত জীবন বৃত্তান্ত;- আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে ভোট গ্রহণ কর্মকর্তাগণের প্রশিক্ষণ কর্মশালায় মতিয়ারের নৌকা প্রতিকে ভোট দেয়ার প্রকাশ্যে সমর্থন দিলেন ইস্কন ভক্তরা লালমনিরহাটে হরিজন সম্প্রদায়ের সাথে মতবিনিময় সভা ফুলবাড়িতে স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে ধর্ষক গ্রেফতার নৌকাই ভরসা, সেটা মাথায় রাখতে হবে- হাসিনা দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে লালমনিরহাটে পৃথক তিন আসনে ১৯ প্রার্থী ভোটের মাঠে লালমনিরহাট থেকে যারা প্রার্থীতা প্রত্যাহার করলেন

ফুলবাড়ী’র শিমুলবাড়ীতে সোনাইকাজী আশ্রয়ণ প্রকল্প-২ এর ৩৯ টি ঘরে যাওয়ার রাস্তা অন্যের জমির ক্ষেতের আইল”

Reporter Name
  • Update Time : সোমবার, ২৮ আগস্ট, ২০২৩
  • ২২৩ Time View

আব্দুর রাজ্জাক রাজ , ফুলবাড়ী (কুড়িগ্রাম):
আশ্রয়ণ-২ প্রকল্প (আশ্রয়ণ প্রকল্প নামেও পরিচিত), বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের অধীন একটি সরকারি প্রকল্প যার মাধ্যমে ভূমিহীন ও গৃহহীন এবং যার জমি আছে ঘর নেই এমন পরিবারের জন্য বাসস্থান নির্মাণ করা হয়।
প্রকল্পের বিশেষত্বসমূহের মধ্যে উল্লেখ্যযোগ্য বিশেষত্ব হলো “গ্রামেই শহরের সুযোগ-সুবিধা নিশ্চিতকরণ পুনর্বাসিত পরিবারের জন্য বিনামূল্যে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়া হয় এবং প্রকল্প স্থানে নিরাপদ সুপেয় পানির জন্য নলকূপের সংস্থান করা হয়। পুনর্বাসিত পরিবারের জন্য কমিউনিটি সেন্টার, মসজিদ/মন্দির ও কবরস্থানসহ পুকুর খনন ও অভ্যন্তরীণ যোগাযোগের জন্য রাস্তা নির্মাণ করে দেওয়া হয়।”
কিন্তু কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলাধীন ২ নং শিমুলবাড়ী ইউনিয়নের আওতাভুক্ত সোনাইকাজী আশ্রয়ণ প্রকল্প-২ এর ৩৯ টি ঘরে যাওয়ার রাস্তা হচ্ছে অন্যের জমির ক্ষেতের চিকন আইল” এবং ৩৯টি পরিবারের জন্য চারটি টিউবওয়েল । সোনাইকাজী আশ্রয়ণ প্রকল্প-২ উক্ত ইউনিয়নের ৮ নং ওয়ার্ডে ধরলা নদীর তীরে অবস্থিত এবং শেখ হাসিনা ধরলা সেতু’র পশ্চিম-উত্তরের ২০০ মিটার সামনে ।এই প্রকল্পের ভূমিহীন ও গৃহহীন সুবিধাভোগীগণ আশ্রয়ণ-২ প্রকল্প-এর মাধ্যমে ১ম থেকে ৪র্থ পর্যায় পর্যন্ত তাদের এ ঘরগুলো পেয়েছেন । কিন্তু কষ্ট ও বেদনাদায়ক বিষয় হচ্ছে তাদের আবাসনে যাওয়ার জন্য কোন রাস্তার ব্যবস্থা এ পর্যন্ত করে দেওয়া হয়নি । এ আবাসনের চর্তুরদিকে মানুষের আবাদী জমি যা কৃষি কাজে সকল মৌসুমে ব্যস্ত থাকে । সোনাইকাজী‘র এ আবাসনবাসী এসব আবাদি জমির চিকন আইল ব্যবহার করে অভ্যন্তরীণ যোগাযোগ করে থাকে । দীর্ঘদিন থেকে এ আইল দিয়ে অতি কষ্টে চলাচল করলেও এখন আর আবাসন সংলগ্ন জমির মালিকেরা যাতায়াত করতে দেয় না । তাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায় জমির আইল ব্যবহার করলে আইল ভেঙ্গে গিয়ে জমির ফসলের ক্ষতি হয় । সেচ মৌসুমে আইল দিয়ে হাঁটার কারণে জমির আইল ভেঙ্গে এক জমির পানি অন্য জমিতে চলে যায় ।এতে জমির ক্ষতি ও ঝগড়া-বিবাদ হয় । এ প্রকল্পের ১৭ নং ঘরে বসবাসকারি মাহাবুব আলম বলেন, আমাদের আইল দিয়ে হাঁটতে দেয় না ।আইলের মধ্যে কাঁটা ও বেড়া দিয়ে রাখে জমির মালিকেরা।
নুরনাহার বেগম বলেন, শুকনো মৌসুমে এ চিকন আইল দিয়ে হাটা গেলেও বর্ষাকালে তা তলিয়ে যায়, তখন আর হাঁটা যায় না , দূর্ঘটনা ঘটে । যেকোন সময় পা পিছলে জমিতে গিয়ে পড়তে হয় । এতে জমির ফসলের ক্ষতি হয়, জমির মালিকেরা রাগ করে, ঝগঢ়া বিবাদ ও অপমাণ করে আমাদের ।এ আবাসনে বসবাসকারী আলমগীর নামে একজন বলেন, পাঁচ/ছয় মাস আগে একজন রুগী এখানে অসুস্থ হয়ে পড়লে আমরা অতি কষ্টে চার-পাঁচজন ধরে ঝুলিয়ে ঝুলিয়ে ৩০০ মিটার দূরে মেইন রাস্তায় নিয়ে যাই এবং এতে রোগী আরও গুরতর অসুস্থ্য হয়ে পড়ে ।
এখানকার একজন মহিলা সুবিধাভোগী, মহিমা বেগম এর বক্তব্যে জানা যায় যে, শুধু রাস্তা নয় এখানে ৩৯ টি পরিবারের জন্য মাত্র চারটি টিউবওয়েল যা সিরিয়াল ধরে অনেক্ষণ দাঁড়িয়ে পানি নিতে হয় । একটু বৃষ্টি হলেই আবাসনের ভিতরে পানি জমে থাকে । আমরা অনেক বার মেম্বার, চেয়ারম্যানকে জানাইছি তাঁরা প্রতিবারেই আশা দেয় কিন্তু কাজ এখনও হয়নি ।
সোনাইকাজী আশ্রয়ণ প্রকল্প-২ এর ওয়ার্ড মেম্বার জনাব মোঃ জমসেদ আলী এসব প্রশ্নের উত্তরে বলেন, আমরা কর্তৃপক্ষকে তাদের সব সমম্যার কথা জানিয়েছি কিন্তু এখনও কোন ব্যবস্থা গ্রহণ করনে নি তাঁরা । আমার করণীয় কিছুই নাই এখানে ।
উক্ত ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মহোদয় জনাব মোঃ শরীফুল আলম মিয়া বলেন, তাদের খোঁজ-খবর আমি নিয়মিত নিয়ে থাকি এবং তাদের সমস্যাগুলো আমি মাসিক মিটিং এ প্রতিবারই তুলে ধরি ।তিনি আরও বলেন, এ আবাসনের পূর্ব দিক দিয়ে রাস্তা হবার কথা যা এখনও অন্যের জমির ক্ষেতের চিকন আইল, এবাবের বর্ষা মৌসুম বের হলে কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে একটা ব্যবস্থা নিতেই হবে ।
ফুলবাড়ী উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) জনাব মোছাঃ মলিহা খানম বলেন, সোনাইকাজী আশ্রয়ণ প্রকল্প-২ এর এ ধরণের সমম্যা থাকলে আমরা খোঁজ খবর নিয়ে তা কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে দ্রুত সমাধান করার চেষ্টা করবো ।

 

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved © 2023 English Bangla
Theme Customized BY WooHostBD